অল্প পুজিতে লাভজনক পাঁচটি স্মার্ট ব্যবসার আইডিয়া

ব্যবসার কথা চিন্তা করতে গেলেই যে বিষয়টি সামনে আসে তাহলেও পুঁজি এবং ব্যবসার আইডিয়া  অর্থাৎ কি নিয়ে ব্যবসা করব কিভাবে ব্যবসা করব  কত পুঁজি বিনিয়োগ করবে ইত্যাদি তাই কত পুঁজি বিনিয়োগ করব ইত্যাদি তাই আপনাদের সামনে নিয়ে এলাম দারুন কিছু স্মার্ট ব্যবসার আইডিয়া তো চলুন কথা না বাড়িয়ে চলে যাওয়া যায় আমাদের মূল টপিক এ ফুড কোর্ট বর্তমানে রাস্তার মোড়ে মোড়ে কিংবা রাস্তার পাশের ছোটখাটো টং দোকানে যে ব্যবসাটি বহুল  প্রসারিত হচ্ছে তা হল ফাস্টফুডের দোকান বা প্রসারিত হচ্ছে তাহলে ফাস্টফুডের দোকান বা ফুট কোট এটি কেন স্মার্ট পেশা কেননা এতে রয়েছে অল্প পুঁজি বিনিয়োগ প্রতিদিনের লাভ প্রতিদিন ঝামেলামুক্ত ব্যবসা অল্প পুঁজিতে বেশি লাভ দেখা যাক কিভাবে শুরু করতে পারি আমরা এই ব্যবসাটি একটি ফুডকোর্ট চালু করতে বা তৈরি করতে গেলে যে পরিমাণ পুঁজি বিনিয়োগ করতে হয় তা খুব বেশি নয় ধরুন 5 থেকে 20 হাজার টাকার মধ্যে একটি ছোটখাটো খাবারের দোকান চালু করা যায় এটিকে ভাসমান হোটেল বলা যায় আজকাল গুলশান বনানী থেকে শুরু করে গ্রামে-গঞ্জে চিপায় সব জায়গাতেই এসব ফাস্টফুডের দোকান দেখা মেলে যেখানে ঝাল মুড়ি থেকে শুরু করে রোস্ট পর্যন্ত বিক্রি করা হয় সিজন ভেদে খাবারের বিভিন্নতা আসে পজিশনের উপর ভিত্তি করে বিনিয়োগের তারতম্য হতে পারে খাবারের চাহিদা অনুযায়ী মূলধনের তারতম্য হতে পারে তাই আপনাকে প্রথমেই বুঝি সংগ্রহের পাশাপাশি নির্ধারণ করতে হবে আপনার ব্যবসাটি কোন জায়গায় সবচেয়ে বেশি চলবে অর্থাৎ যে সমস্ত জায়গাতে জনসমাগম বেশি যেরকম রাস্তার মোড় পার্কের পাশে ছোটখাটো বাজারে বাসার নিচে এমনকি বড় লঞ্চ বা যাত্রীবাহী স্টিমারে এটি  শুরু করতে পারেন  তবে আপনার আশপাশের এমন একটি  স্থান নির্ধারণ করুন যেখানে বছরের সব সময় জনসমাগম এর সম্ভাবনা  রয়েছে তবে স্থান নির্বাচনের সময় এ বিষয়টি মাথায় খেয়াল রাখতে হবে যেন আপনার পজিশনটি ঝামেলা মুক্ত হয় যে রকম চাঁদাবাজ এলাকার মাস্তান ইত্যাদির প্রভাব মুক্ত থাকুন আপনি কি চমৎকার পজিশন পেয়ে গেলেন এখন চিন্তা হচ্ছে কিভাবে শুরু করবেন এ বিষয়টি ভাবার আগে আপনাকে একটু ছোট সার্ভে করতে হবে যে জায়গাটি নির্বাচন করেছেন সে জায়গায় কেমন ধরনের মানুষের সমাগম কি তাদের চাহিদা ধরুন আপনি যে জায়গাটি নির্বাচন করছেন সেটি হচ্ছে কোন স্কুল বা কলেজের সেখানে ছাত্রছাত্রীরা তাদের বয়সের চাহিদা অনুযায়ী আপনাকে খাবার সরবরাহ করতে হবে আবার আপনি যদি নির্বাচন করছেন সেটি হতে পারে কোন শিল্প কারখানা  বা গার্মেন্টস ফ্যাক্টরির সামনে সেখানে মধ্যবয়সী শ্রমিকদের সংখ্যাই বেশি থাকে তাই ওখানকার খাবারের চাহিদা টা অবশ্যই বিনা রকম হতে পারে এটি যদি পারে স্টেশন হয় তবে তার চাহিদা অন্যরকম হতে পারে তাই যেহেতু অল্প তাই ভেবে চিন্তে বিনিয়োগ করতে হবে আবার সেই জন্য খাবারের ভিন্নতা যেরকম শীতকালে চা-কফি ঝাল মুড়ি ইত্যাদি চাহিদা বেশি থাকে আবার গরমের সময় ঠাণ্ডা বা কোমল পানীয় ফলের জুস বিভিন্ন গ্রীষ্মকালীন ফল ইত্যাদি চাহিদা বেশি থাকে তাই চিন্তাভাবনা করে সাজিয়ে নিন কাস্টমারদের পছন্দ মতো খাবার এখন আপনার ফোনটিকে দৃষ্টিনন্দন করতে এর বাইরে কিছু বাড়তি আলোকসজ্জা যোগ করতে পারেন সামনে কিছু চেয়ার টেবিল অথবা কাস্টমারদের বসার জন্য কিছু উপকরণ লাগতে পারে তবে অবশ্যই খেয়াল রাখবেন কাস্টমারদের যেন যথাযথভাবে ভালো মানের খাবার সরবরাহ করতে পারেন এবং অধিক সময়ের জন্য আড্ডা না হয় মনে রাখবেন খাবারের ব্যবসা হচ্ছে মানুষের একটি মৌলিক চাহিদা পূরণ করার সাথে সম্পর্কিত তাই অবশ্যই গুণগতমানের ক্ষেত্রে কোন প্রকার ছাড় দিবেন না চলুন আমরা এবার দ্বিতীয় আইডিয়া তে চলে যাই এটা হচ্ছে এলইডি বাল্ব তৈরি বন্ধুরা কথা শুনে চমকে যাওয়ার মত নয় আপনার বিশ্বাস না হলেও মাত্র 10,000 টাকায় আপনি শুরু করতে পারেন এলইডি বাল্ব তৈরির ব্যবসা অল্প পুঁজিতে ব্যবসার আইডিয়া আপনাকে যে সমস্ত উপকরণ কিনতে হবে তা হচ্ছে মালামাল এবং একটি পাঞ্চিং মেশিন এটিকে হোল্ডার এর সাথে যুক্ত হয় এর সাথে যোগ করতে প্রয়োজন হয় আপনি ঢাকা নবাবপুর থেকে এসব কিছুর মালামাল একসাথে কিনতে পারবেন তবে অবশ্যই খেয়াল রাখবেন প্রতারকের খপ্পরে যেন না পড়েন আসলে আমি ঠিকই স্মার্ট ব্যবসা আইডিয়া বলেছি কিন্তু বাজারজাতকরণ নিয়ে একটু সমস্যা আছে কেননা আপনি পণ্যটি মোড়কজাত করতে গেলে লাইসেন্স এর প্রয়োজন হয় আপনি যদি বড় করে উঠতে চান তবে আপনি যে লাইসেন্স করতে পারেন অথবা বিভিন্ন লাইসেন্সকৃত কোম্পানি খালি প্যাকেট বিক্রি করে সেটিও আপনি ব্যবহার করতে পারেন অথবা শুধুমাত্র সাদা প্যাকেটে বিক্রি করতে পারেন

মন্তব্য করুন